কৃষি তথ্য সার্ভিস (এআইএস) গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার
মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C

কবিতা অগ্রহায়ণ-১৪২১

ভেজাল সার
মূয়ীদুল হাসান*
আছে সবার জানা
সার গাছের খাবার
বাড়-বাড়তি আর  ফলন বাড়াতে
যা ষোলো আনাই দরকার।
হরেকরকম খাবার যেমন
হরেকরকম সার।
পুষ্টি জোগায় গাছের দেহে
 যেমন আছে যার।
খাবারের যেমন ভেজাল এখন
সারেও আছে তেমন,
সহজ কিছু পরীক্ষাতেই
ধরা যায় তা কেমন।
সাদা সার ইউরিয়ার ভেজালে
 মেশায় ছোট-বড় দানা,
সহজ একটি পরীক্ষাতেই বুঝি
এতে ভেজাল আছে কিনা।
এক চামচ ভালো ইউরিয়াতে নিলে তিন চামচ পানি
সহজেই তার দ্রবণ হবে আমরা সবে জানি।
পাত্রের গায়ে হাত দিলে ঠাণ্ডা ঠাণ্ডা লাগে
চুন মেশানো থাকলে ভাতে ঝাঁঝালো গন্ধ জাগে।
টিএসপি আর এসএসপি
দেখতে একই রকম
টিএসপির ভেজালে তাই
এসএসপি থাকে বেশি কম।
টিএসপি নাকি এসএসপি
বুঝব কেমন করে
এজন্য সার দু’আঙুলে নিয়ে
চাপতে হবে জোরে।
 ভেঙে গেলে এসএসপি আর
না ভাঙলে টিএসপি সার,
ডাবের পানির রঙ ধরে
আধা গ্লাস পানিতে তার।
এসএসপি মেশানো হলে ঘোলা দ্রবণ করে
সারে ভেজাল ঠিকই আছে, তলানি যদি পড়ে।
ডিএপিতে টিএসপি বা এসএসপি সার মেশায়
মাটিও রঙ করে বেচে ঠকিয়ে লাভের আশায়।
 খোলা কাগজে ঘণ্টাখানেক বা মুঠোর ভেতর নিলে
ভিজে উঠবে সহজেই তা সঠিক সার হলে।
কয়েক দানা ডিএপি চামচে নিয়ে
ধরলে মোমের শিখায়
বুঁদবুঁদ হয়ে উয়ে গিয়ে
চামচে সাদা আঁচড় দেখায়।
আরও একটি সার এমওপির রঙ হলো লাল
লাল বালু, কাঁচ, ইটের গুঁড়া মিশিয়ে করে ভেজাল।
হাতের মুঠোয় ঘষলে পরে তার লাল রঙ করে
এক চামচ আধা গ্লাস জলে গুঁড়ার তলানি পড়ে।
আসল সার জিপসাম সাদা পাউডারের মতো
 ভেজা হলেই বুঝতে হবে ভেজাল আছে যত।
এক চামচ জিপসামে নিলে দশ ফোঁটা হাইড্রোক্লোরিক
বুঁদবুঁদ হলেই বুঝতে হবে সার নাই সঠিক।
ভেজাল জিংকে থাকতে পারে খাবারের লবণ
সঙ্গে আরও থাকতে পারে জিপসামের মিশ্রণ।
আসল জিংক মনোহাইড্রেট, ভেজালে জিংক হেপ্টা
মনোহাইড্রেট হলো দানাদার হেপ্টা সার চ্যাপ্টা।
 হেপ্টাহাইড্রেট পানিতে স্বচ্ছ দ্রবণ করে
মনোহাইড্রেটে পানির নিচে তলানি পড়ে।
বরিক এসিড বা সলুবর বোরণের আরেক নাম
 ভেজালে মেশায় কমদামি সালফেট বা জিপসাম
স্বচ্ছ সাদা মিহি পাউডার এই সার বোরণ
আধা গ্লাসের এক চামচে দেয় স্বচ্ছ দ্রবণ।
সার যত ভেজাল তত
তাই চিনতে হবে সঠিক সার,
সঠিক সময়ে সঠিক সার দিলে
চিন্তা নাই আর।
সহজ উপায়ে ভেজাল যত
সার চিনলে তবে
বাঁচবে টাকা বাড়বে ফলন
কষ্ট সফল হবে।

বাংলাদেশের চাষি
মো. আমীরুল ইসলাম**

মাটির সাথে যুদ্ধ করে ফলাও সবুজ হাসি
তুমি মোদের জগৎ সেরা বাংলাদেশের চাষি।।
কঠিন মাটির বুকে তুমি ফোটাও আশার ফুল
 শ্রেষ্ঠ তুমি দেশের সেরা নেই তো তোমার তুল।।
ফল ফলাদি ফসল ফলাও কঠিন পরিশ্রমে
সবুজ মাঠে সোনার হাসি হাসাও কঠিন শ্রমে।।
অন্নে পূর্ণ বাংলাদেশকে দেখতে যদি চাই
 সেই স্বপ্নেও তুমিই আশা তোমার জুড়ি নাই।।
সবার মুখের খাবার জোগাও শক্ত দুটি হাতে
দাম পেলে কি নাইবা পেলে নেই অভিমান তাতে।।
মাঠ ফসলের মিষ্টি সুবাস গর্বে ভরায় বুক
সবার খুশিই তোমার খুশি সবার মুখেই সুখ।।
মুখটি ভরা হাসি থাকুক গোলা ভরুক ধানে
 তোমার হাসি ছড়িয়ে পড়–ক দেশের সকল খানে।।
 তোমার পানে চেয়ে মোরা আশায় বাঁধি বুক
সুখের হাসি হাসবে সবাই রইবে নাকো দুখ।।
হাড় খাটুনি খেটেও তোমার মুখটি ভরা হাসি
তুমিই মোদের জগৎ সেরা বাংলাদেশের চাষি।

* কৃষি সম্প্রসারণ অফিসার, কাপাসিয়া, গাজীপুর। মোবাইল : ০১৭৭১৭৭৮৮৮৫ ** এম এ এ ও, দেবিদ্বার, কুমিল্লা

Share with :

Facebook Facebook